জাতীয়
পর্যটকবাহী বাস কেনার উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন
তারিখ: 21 - 11 - 2020


পর্যটন খাত দেশের অন্যতম আয়ের উৎস। কিন্তু পর্যটকবান্ধব যাতায়াত ব্যবস্থা এখনো সর্বত্র গড়ে ওঠেনি। ব্যক্তিগতভাবে চলাফেরায় খরচ হয় তুলনামূলক বেশি। এমন বাস্তবতায় পর্যটকবাহী বাস কেনার উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন।

যোগাযোগ ব্যবস্থা সহজের অংশ হিসেবে বেসরকারি উদ্যোগে চলতি বছরের শুরুতে প্রথমবারের মতো পর্যটক বাস চালু হয়েছে কক্সবাজারে। কলাতলী থেকে মেরিন ড্রাইভ সড়ক হয়ে টেকনাফ পর্যন্ত চলছে এটি। এবার সরকারি উদ্যোগে পর্যটকদের জন্য বাস কেনা হচ্ছে। সেগুলো ঢাকা, কক্সবাজার ও সিলেটের পর্যটকদের জন্য চলবে। দেশি-বিদেশি পর্যটকরা এ বাহনের মাধ্যমে ঘুরে পর্যটনের সুবিধা পাবেন। এরপর পর্যটনকেন্দ্র ও পর্যটকবাহী বাসের সংখ্যা বাড়বে। করোনায় বিধ্বস্ত পর্যটন খাতের নাজুক অবস্থা কাটাতে বাস গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে মনে করছে পর্যটন করপোরেশন।

করপোরেশনের চেয়ারম্যান রামচন্দ্র দাস আমাদের সময়কে বলেন, প্রাথমিকভাবে ৬টি বাস কেনার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। উদ্যোগটি বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের। প্রকল্পটি অনুমোদন পেলে বাস পরিচালনা করবে পর্যটন করপোরেশন। ভাড়ার ব্যাপারে এখনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

জানা গেছে, পরীক্ষামূলকভাবে তিন পর্যটন এলাকা ঢাকা, কক্সবাজার ও সিলেটে চলবে পর্যটক বাস। এর মধ্যে দুটি বাস চলবে ঢাকা বিভাগের বিভিন্ন পর্যটন এলাকায়। চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারের পর্যটন এলাকায় একটি করে দুটি বাস চলবে। দুটি বাস চলবে সিলেট বিভাগের চার জেলায়। ঢাকার বাসগুলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কার্জন হল, কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার, লালবাগ কেল্লা, আহসান মঞ্জিল, বলধা গার্ডেন, বোটানিক্যাল গার্ডেন, জাতীয় সংসদ ভবন, স্মৃতিসৌধ, সোনারগাঁওয়ের পানাম নগর, কারুপল্লীসহ বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানে ঘুরবে। কক্সবাজারের বাসটি কলাতলী থেকে মেরিন ড্রাইভ সড়ক হয়ে টেকনাফসহ বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানে যাবে। সিলেট বিভাগের চার জেলায় চা বাগান, হাওর, জমিদারবাড়ি, মাধবকু- জলপ্রপাতসহ আকর্ষণীয় পর্যটনকেন্দ্রে পর্যটকদের নিয়ে যাবে সেখানকার বাস দুটি।

পর্যটকেরা সকালে নির্দিষ্ট এলাকা থেকে ছাদখোলা এসব বাসে উঠবেন। সারাদিন বিভিন্ন দর্শনীয় এলাকা ঘুরে আবার আগের জায়গায় নেমে যাবেন। ছয়টি বাস কিনতে সম্ভাব্য খরচ ধরা হয়েছে ১৯ কোটি ২০ লাখ টাকা। তাতে প্রতিটি বাসের দাম পড়বে ৩ কোটি ২০ লাখ টাকা। প্রতি বাসে আসন থাকবে ৪০ থেকে ৪৫টি। থাকবে ওয়াই-ফাই, গাইড। বাস কেনার প্রকল্পটি বর্তমানে পরিকল্পনামন্ত্রীর অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে। প্রকল্প ব্যয় ৫০ কোটি টাকার নিচে হওয়ায় এটি পরিকল্পনামন্ত্রী নিজ ক্ষমতাবলে অনুমোদন করতে পারবেন।

স্বাধীন বাংলা ডট কম
প্রকাশক কর্তৃক ৩৭/২, ফায়েনাজ অ্যাপার্টমেন্ট (১৫ম তলা), কালভার্ট রোড, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০ হতে প্রকাশিত ।
সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: ৩৭/২, ফায়েনাজ অ্যাপার্টমেন্ট (১৫ম তলা), কালভার্ট রোড, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।
ফোন : ০২-৯৫৬২৮৯৯ মোবাইল: ০১৬৭০-২৮৯২৮০
ই-মেইল : swadhinbangla24@gmail.com
প্রধান উপদেষ্টা: ফিরোজ আহমেদ ( সাবেক সচিব, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় )
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি: ডাঃ মো: হারুনুর রশীদ
সম্পাদক ও প্রকাশক মো. খয়রুল ইসলাম চৌধুরী
ইউরোপ মহাদেশ বিষয়ক সম্পাদক- প্রফেসর জাকি মোস্তফা (টুটুল)